/* */
   Monday,  Sep 24, 2018   08:21 AM
Untitled Document Untitled Document
শিরোনাম: •পবিত্র আশুরা উপলক্ষে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে : আছাদুজ্জামান মিয়া •বান্দরবানে কৃষি ব্যাংকের উদ্যোগে সিংগেল ডিজিট সুদে ঋণ বিতরণ •সৌদি আরবে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের প্রথম বিদেশ সফর •জাতিসংঘ অধিবেশনে যোগদিতে শুক্রবার প্রধানমন্ত্রীর লন্ডনের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ •রোহিঙ্গা বসতিতে কক্সবাজারের জীববৈচিত্র্য হুমকির মুখে : ইউএনডিপি •মর্যাদার লড়াইয়ে আজ মুখোমুখি ভারত ও পাকিস্তান •সংসদে জাতীয় দক্ষতা উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ বিল, ২০১৮ পাস
Untitled Document

ক্লাব ছেড়ে যেতে ৪৮ ঘণ্টার আলটিমেটাম

তারিখ: ২০১৫-০৬-০১ ১৭:১৯:০০  |  ২৪৪ বার পঠিত

0 people like this
Print Friendly and PDF
« আগের সংবাদ পরের সংবাদ»

নিজস্ব প্রতিবেদক: জাতীয় প্রেসক্লাবের নতুন কমিটিকে ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে চলে যাওয়ার আলটিমেটাম দিয়েছেন বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) একাংশের সভাপতি শওকত মাহমুদ।

যাওয়ার আগে অযাচিত দখলদারিত্বের জন্য ক্লাব সদস্যদের কাছে ক্ষমা চাওয়ারও আহবান জানিয়েছেন তিনি।

সোমবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের প্রবেশ মুখে বিক্ষোভ মিছিল পরবর্তী সমাবেশে তিনি এ আলটিমেটাম দেন।

নতুন কমিটিকে হুঁশিয়ার করে তিনি বলেন, অবৈধ এ কমিটিকে আমরা আর এক মুহূর্তও প্রেসক্লাবে দেখতে চাই না। অবৈধ কমিটির কোন সিদ্ধান্ত ক্লাব সদস্যরা মানে না।

আগামী ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে এ কমিটি যদি ক্লাব সদস্যদের কাছে ক্ষমা চেয়ে প্রেসক্লাব ছেড়ে না যায় তাহলে চূড়ান্ত কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে জানিয়ে আগামী ৪ জুন আবারও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালনের ঘোষণা দেন শওকত মাহমুদ।

তিনি আরো বলেন, অবৈধ কমিটি সিদ্ধান্তের নামে সাধারণ সদস্যদের স্বার্থবিরোধী কোন পদক্ষেপ নিলে তার সমুচিত জবাব দেওয়া হবে।

সাংবাদিকদের অন্য প্রতিষ্ঠানগুলোকেও এ জাতীয় অযাচিত হস্তক্ষেপের ব্যাপারে সতর্ক করে শওকত মাহমুদ বলেন, সাংবাদিকদের প্রতিটি সংগঠনই হুমকির মুখে পড়েছে। দলীয় সন্ত্রাসের মুখে পড়েছে।

তিনি বলেন, প্রেসক্লাব নিয়ে আমরা কোন রাজনীতি করতে চাই না। আমাদের রাজনীতি হল সর্বক্ষেত্রে গণতান্ত্রিক ধারা চালু রাখা, ফিরিয়ে আনা। প্রেসক্লাবের মালিক সাধারণ সদস্যরা। প্রেসক্লাবের মালিক রাতের আঁধারে দখল করা গুন্ডারা নয়।

এর আগে শওকত মাহমুদ ছাড়াও বিএফইউজে‘র একাংশের সেক্রেটারি রুহুল আমিন গাজী ও ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) একাংশের সেক্রেটারি জাহাঙ্গীর আলম প্রধানসহ অর্ধ শতাধিক প্রেসক্লাব সদস্য প্রেসক্লাব প্রাঙ্গণে মিছিল করেন।

দুপুর ১টার দিকে প্রেসক্লাবের সভাপতির রুমের সামনে থেকে শুরু হয়ে মিছিলটি প্রেসক্লাব প্রাঙ্গণে ঘুরতে থাকে।  মিছিল থেকে ‘অবৈধ কমিটি, মানি না মানবো না’, ‘দখলদারদের কালো হাত, ভেঙে দাও গুঁড়িয়ে দাও’ স্লোগান দেওয়া হয়।

মিছিলে ‘জাতীয় প্রেসক্লাবে দখলদারিত্বের প্রতিবাদে সাংবাদিকদের বিক্ষোভ’ এবং ‘দখলদার হটাও, প্রেসক্লাব বাঁচাও’ লেখা ব্যনার দেখা যায়।


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

•যুক্তরাজ্যের মানবাধিকার কর্মী জুলিয়ান ফ্রান্সিসের স্বপ্ন পূরণ হলো •কুয়াকাটা প্রেসক্লাবের সভাপতি ও সহ-সাধারন সম্পাদক নির্বাচিত হওয়ায় কলাপাড়া রিপোর্টার্স ইউনিটির সদস্য বুলেট ও মিরনকে ফুলেল শুভেচ্ছা ॥ •নন-এমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো দ্রুত এমপিওভুিক্তর চেষ্টা করা হবে : শিক্ষামন্ত্রী •সরকারের উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড সম্পর্কে তুলে ধরতে গণমাধ্যমের প্রতি তথ্য সচিবের আহ্বান •তথ্য মন্ত্রণালয়ের ১৩ সংস্থার সঙ্গে বার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তি •কলাপাড়া রিপোর্টার্স ইউনিটির আয়োজনে ইফতার ও দোয়া-মিলাদ অনুষ্ঠিত •চলচ্চিত্র পরিবারের সাথে তথ্যসচিবের মতবিনিময় •ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন মূলধারার গণমাধ্যমকে নিরাপত্তা দেবে
Untitled Document
  • সর্বশেষ সংবাদ
  • সবচেয়ে পঠিত
  • এক্সক্লুসিভ

Top
Untitled Document