/* */
   Sunday,  Jun 24, 2018   7 PM
Untitled Document Untitled Document
শিরোনাম: •আওয়ামী লীগের ইতিহাস মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠার ইতিহাস : প্রধানমন্ত্রী •জাতীয় উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে নিষ্ঠার সঙ্গে কাজ করুন : রাষ্ট্রপতি •এমপি হোক আর এমপির ছেলে হোক কাউকে ছাড় নয়: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী,আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল • তিন সিটিতে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেলেন যারা •নাইজেরিয়ার জয়ে আর্জেন্টিনার স্বপ্ন বড় হলো •আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে নানা কর্মসূচি •টেলিটকের ফোরজির জন্য অপেক্ষা আরো চার মাস
Untitled Document

ভার্জিনিয়া টিভি সাংবাদিক হত্যাকারীর মৃত্যু

তারিখ: ২০১৫-০৮-২৭ ১২:৪৮:১৭  |  ২১৬ বার পঠিত

0 people like this
Print Friendly and PDF
« আগের সংবাদ পরের সংবাদ»

নিউজ ডেস্ক: সরাসরি সম্প্রচারের সময় মার্কিন টিভি সাংবাদিক এবং ক্যামেরাম্যানকে গুলি চালিয়ে হত্যার জন্য দায়ী ব্যক্তি আত্মহত্যার চেষ্টা চালানোর পর মারা গেছেন বলে জানিয়েছে পুলিশ।

সন্দেহভাজন ওই ঘাতক নিজেও ছিলেন টিভি স্টেশনটির এক সাবেক রিপোর্টার ভেস্টার লি ফ্লানাগান। তাকে ধরার জন্য পুলিশ ধাওয়া করলে তিনি গাড়ি নিয়ে পালিয়ে গিয়ে নিজেকে গুলি করে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন।

ভার্জিনিয়া রাজ্য পুলিশের বরাত দিয়ে বিবিসি এর আগের খবরে জানায়, ইন্টারস্টেট ৬৬ হাইওয়েতে ওই ব্যক্তির গাড়ি চিহ্নিত করার পর পুলিশের ধাওয়ার মুখে গাড়িটি রাস্তায় বিধ্বস্ত হয়। গাড়ির কাছে গিয়ে চালককে গুলিতে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে পুলিশ।

পরে হাসপাতালে তার মৃত্যু হয় বলে জানিয়েছেন পুলিশের এক মুখপাত্র।

পেশাগতভাবে ব্রাইস উইলিয়ামস নামে পরিচিত ফ্লানাগানের ট্যুইটার একাউন্ট থেকে জানা গেছে,  চাকরি নিয়ে তার ক্ষোভ ছিল। তিনি সাংবাদিক ওয়ার্ড ও পার্কারের বিরুদ্ধে তাকে (ফ্লানাগান) অভিযুক্ত করার অভিযোগ করেছিলেন।

স্থানীয় গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ফ্লানাগান গোটা ডব্লিউডিবিজে-সেভেন টিভি স্টেশনের বিরুদ্ধে বৈষম্যের অভিযোগ এনে মামলা করেছিলেন এবং স্টেশনটির বেশির ভাগ স্টাফের নামেই  তাকে অভিযুক্ত করার অভিযোগ করেছিলেন। ২০১৪ সালের জুলাইয়ে এক বিচারক মামলাটি খারিজ করে দেন বলে শোনা যায়।

হত্যাকান্ডের আগের দিন সন্ধ্যায় স্যোশাল মিডিয়ায় ফ্লানাগান যা বলেছিলেন, তাতে হত্যাকান্ডটি পূর্ব-পরিকল্পিত ছিল এমন আভাসই পাওয়া যায় বলে জানিয়েছে পুলিশ।

যুক্তরাষ্ট্রের ভার্জিনিয়া অঙ্গরাজ্যের মনেটা শহরে সাংবাদিক হত্যার এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন, ডাব্লিওডিবিজে-সেভেন টেলিভিশনের রিপোর্টার অ্যালিসন পার্কার এবং ক্যামেরাম্যান অ্যাডাম ওয়ার্ড।

পার্কার স্মিথ মাউন্টেইন লেকের কাছে ব্রিজওয়াটার প্লাজা শপিংমলে একজনের সাক্ষাৎকার নিচ্ছিলেন। তখনই তাদের হত্যা করা হয় বলে জানিয়েছে টিভি স্টেশনটি।

হত্যাকারী স্বয়ং কাছ থেকে সাংবাদিককে গুলি করে মারার ভিডিও স্যোশাল মিডিয়ায় আপলোড করে।

রিপোর্টার অ্যালিসন পার্কার শপিং সেন্টারে পর্যটন নিয়ে সকালের একটি টিভি সাক্ষাৎকার শুরু করার সময় হঠাৎ ৮ টি গুলির শব্দ শোনা যায়। সঙ্গে সঙ্গে ক্যামেরা মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। শোনা যায় চিৎকার চেঁচামেচি।

ক্যামেরাটি মাটিতে পড়ে গেলেও এটি তখনো চলছিল। এতে দেখা যায়, কালো পোশাক পরা এক ব্যক্তি হাতে বন্দুক নিয়ে দ্রুতগতিতে স্থান ত্যাগ করে চলে যায়।

ঘটনার সময় পার্কার যে নারীর সাক্ষাৎকার নিচ্ছিলেন তিনি হলেন, সিম্মথ মাউনটেইন রেজিওনাল চেম্বার অব কমার্সের প্রধান ভিকি গার্ডনার। স্থানীয় দৈনিক রোয়ানক টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়, গারডনারের পিঠে গুলি লেগেছে এবং তার অস্ত্রোপচার চলছে।

ঘটনার ঘণ্টা দেড়েক পর ডব্লিউডিবিজে-সেভেনের প্রেসিডেন্ট ও জেনারেল ম্যানেজার জেফরি মারকস দর্শকদের উদ্দেশ্যে বলেন, “আমি অত্যন্ত দুঃখের সঙ্গে এই খবর জানাচ্ছি যে, অ্যালিসন ও অ্যাডাম আজ সকালে মারা গেছে।”

রোয়ানক শহরের মারটিনভ্যালিতে বেড়ে ওঠা ২৪ বছর বয়সী পার্কার জেমস ম্যাডিসন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ডিগ্রি গ্রহণ করার পর ডব্লিউডিবিজে-সেভেন থেকে ইন্টার্ন শেষ করেছিলেন।

আর ২৭ বছর বয়সী অ্যাডামও ওই এলাকায় বেড়ে ওঠেন এবং ভার্জিনিয়া টেক থেকে স্নাতক ডিগ্রি গ্রহণ করেন।


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

•সরকারের উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড সম্পর্কে তুলে ধরতে গণমাধ্যমের প্রতি তথ্য সচিবের আহ্বান •তথ্য মন্ত্রণালয়ের ১৩ সংস্থার সঙ্গে বার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তি •কলাপাড়া রিপোর্টার্স ইউনিটির আয়োজনে ইফতার ও দোয়া-মিলাদ অনুষ্ঠিত •চলচ্চিত্র পরিবারের সাথে তথ্যসচিবের মতবিনিময় •ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন মূলধারার গণমাধ্যমকে নিরাপত্তা দেবে •সাম্প্রদায়িক অপশক্তি নির্মূলের অন্যতম হাতিয়ার চলচ্চিত্র : তথ্যমন্ত্রী •বাংলাদেশে সন্ধান মিলেছে নিখোঁজ সাংবাদিক উৎপল দাসের •সংসদে কমপক্ষে ৩০ শতাংশ নারী সদস্য দেখতে চায় সিডব্লিউপি স্টিয়ারিং কমিটি
Untitled Document
  • সর্বশেষ সংবাদ
  • সবচেয়ে পঠিত
  • এক্সক্লুসিভ

Top
Untitled Document