/* */
   Monday,  Dec 10, 2018   03:16 AM
Untitled Document Untitled Document
শিরোনাম: •স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষায় সজাগ থাকতে সেনা কর্মকর্তাদের প্রতি রাষ্ট্রপতির আহ্বান •মনোনয়ন বাতিলের বিরুদ্ধে খালেদা জিয়ার আপিল ইসিতে খারিজ •মনোনয়ন না পাওয়া দলের প্রার্থীদের মহাজোট প্রার্থীর পক্ষে প্রার্থিতা প্রত্যাহারের অনুরোধ শেখ হাসিনার •নির্বাচনী প্রচারণায় ট্রাম্পকে ‘রাজনৈতিক’ সহযোগিতার প্রস্তাব দেয় রাশিয়া •টেকনোক্রেট কোন মন্ত্রী কেবিনেটে থাকছেন না : ওবায়দুল কাদের •বেগম রোকেয়া দিবস কাল •আগামীকাল থেকে ওয়েস্ট ইন্ডিজ . বাংলাদেশ। ওয়ানডে সিরিজ
Untitled Document

ফল পৃথক প্রকাশ না করায় বিতর্ক

তারিখ: ২০১৫-০৯-০৬ ১৩:২৮:১১  |  ৩৬০ বার পঠিত

0 people like this
Print Friendly and PDF
« আগের সংবাদ পরের সংবাদ»

বিশেষ প্রতিনিধি: ৩৪তম বিসিএস পরীক্ষার ফল প্রকাশ নিয়ে আবারও সমালোচনার মুখে পড়ছে সরকারি কর্মকমিশন (পিএসসি)। এর আগে এই বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষার ফল তিন দফায় এবং লিখিত পরীক্ষার ফল দু'দফায় প্রকাশ করতে হয়েছিল। মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য রক্ষিত কোটায় পৃথকভাবে ফল প্রকাশ না করায় গত ২৯ আগস্ট প্রকাশিত চূড়ান্ত ফলাফল নিয়েও সৃষ্টি হয়েছে বিতর্ক। এ ছাড়াও ৩৫টি ক্যাডারে ৪০৪টি পদ শূন্য রেখে এবং ৯টি ক্যাডারে নির্ধারিত শূন্য পদের বিপরীতে ৫৪৭ জন অতিরিক্ত সুপারিশ করা নিয়েও উঠেছে প্রশ্ন।

উলি্লখিত বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে পিএসসির চেয়ারম্যান ইকরাম আহমেদ বলেন, বিজ্ঞপ্তিতেই বলা আছে, প্রয়োজন এবং চাহিদা বিবেচনায় শূন্য পদের চেয়ে বেশি নিয়োগ দেওয়া যেতে পারে। সে বিবেচনায় পরবর্তী সময়ে কয়েকটি পদে চাহিদা মোতাবেক বেশি নিয়োগ দেওয়া হয়। তিনি বলেন, নিয়ম অনুযায়ী মুক্তিযোদ্ধাসহ বিভিন্ন কোটায় সংরক্ষিত আসনের পুরোটাই পূরণ করা হয়েছে। সামান্য এদিক-সেদিক হয়নি। যেহেতু মেধাক্রম এবং প্রাধিকার কোটা আলাদা করলে কোটাভিত্তিক চিহ্নিতরা চাকরিতে প্রবেশ করার পর থেকেই এক ধরনের অস্বস্তিতে থাকেন। সে কারণে কোটা আলাদা করে দেখানো হয়নি। তিনি আরও বলেন, প্রচলিত নিয়ম ও বিধি মেনে মেধা ও যোগ্যতার ভিত্তিতে ফলাফল দেওয়া হয়েছে। তাই এ ফলাফল নিয়ে বিতর্কের সুযোগ নেই।

কয়েকজন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান সমকালকে জানিয়েছেন, বিসিএস পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের মধ্যে ক্যাডার সার্ভিসে ৩০ শতাংশ পদ মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের দিয়ে পূরণ করার শর্ত থাকলেও ৩৪তম বিসিএস পরীক্ষার চূড়ান্ত ফলে সেই কোটার শর্ত যথাযথভাবে পূরণ করা হয়নি। দেখা গেছে, এবারের ফলাফলে পৃথকভাবে উল্লেখ করা হয়নি মেধাক্রম এবং প্রাধিকার কোটা। মুক্তিযোদ্ধাদের সন্তানদের অভিযোগ, ফলাফলে তাদের শুধু নন ক্যাডার পদের জন্য অপেক্ষমাণ তালিকায় (চাকরির নিশ্চয়তা দেওয়া হয়নি) রাখা হয়েছে। এ নিয়ে সংশ্লিষ্টদের মধ্যে ক্ষোভের সঞ্চার হয়েছে। কেউ কেউ এ নিয়ে আইনি লড়াইয়ে যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন। যদিও পিএসসির চেয়ারম্যান ইকরাম আহমেদ সরাসরি এ অভিযোগ শতভাগ সঠিক নয় উল্লেখ করে বলেছেন, চুলচেরা বিশ্লেষণ করে ক্যাডার সার্ভিসে প্রতিটি কোটা পূর্ণ করেই ফল দেওয়া হয়েছে।

৩৪তম বিসিএস পরীক্ষার চূড়ান্ত ফলাফলে বলা হয়, লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ মোট আট হাজার ৭৬৩ পরীক্ষার্থীর মধ্যে ২ হাজার ১৫৯ জনকে বিভিন্ন ক্যাডার পদের জন্য সুপারিশ করা হয়েছে। সে হিসাবে মোট কৃতকার্য পরীক্ষার্থীর মধ্যে মাত্র ২৫ শতাংশের জন্য চাকরির সুপারিশ করা হয়েছে, বাকি ৭৫ শতাংশ প্রার্থীর ক্ষেত্রে সুপারিশ করা হয়নি। অনুসন্ধানে দেখা যায়, ৩৪তম বিসিএস পরীক্ষার বিজ্ঞপ্তিতে পররাষ্ট্র, হিসাব ও নিরীক্ষা, কর, তথ্য, পশুসম্পদ, স্বাস্থ্য এবং শিক্ষা ক্যাডারের বিভিন্ন বিষয়ে এক হাজার ৫৭৮টি শূন্য পদের ঘোষণা দেওয়া হলেও চূড়ান্ত ফলাফলে সুপারিশ করা হয়েছে ১ হাজার ১৭৪ জনকে। অর্থাৎ, এ কয়েকটি ক্যাডারে মোট শূন্য পদ ৪০৪টি। অন্যদিকে সাধারণ, পুলিশ, ইকোনমি, মৎস্য, কৃষি, গণপূর্ত এবং পরিসংখ্যান ক্যাডারের ক্ষেত্রে বিজ্ঞপ্তিতে ৩৪৪টি পদ শূন্য উল্লেখ করা হলেও চূড়ান্ত ফলাফলে সুপারিশ করা হয়েছে ৮৯১ জনের জন্য।

৩৪তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা থেকেই ফল নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়। দেখা যায়, ২০১৩ সালের ৮ জুলাই প্রথম কোটা পদ্ধতি প্রয়োগ করে প্রথম ফল প্রকাশ করা হয়েছিল। পরে একই বছরের ১৪ জুলাই দ্বিতীয়বার এবং হাইকোর্টের আদেশে ২০১৪ সালের ১৬ ফেব্রুয়ারি তৃতীয় দফায় ফল প্রকাশ করা হয়। লিখিত পরীক্ষার ক্ষেত্রে প্রথম ফল প্রকাশ করা হয়েছিল ২০১৪ সালের ১৮ ডিসেম্বর। পরে ফলাফলে ভুল থাকার কথা স্বীকার করে একই বছরের ৩০ ডিসেম্বর সংশোধিত ফল প্রকাশ করে পিএসসি।


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

•যোগ্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর এমপিও ভুক্তির কাজ চলছে : নাহিদ •রাজৈরে স্কুল নির্বাচন সম্পন্ন •আমতলী উপজেলায় প্রাথমিকের ৮০টি প্রধান শিক্ষকের পদ খালি, শিক্ষার বেহাল দশা •ছাত্র বৃত্তি সঠিকভাবে বিতরণের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর •বাক ও শ্রবণ প্রতিবন্ধীদের জন্য ইশারা ভাষা ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠা করা হবে : মেনন •ঝিনাইদহে এবার স্কুল ছাত্রীকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ডেকে এনে হত্যাচেষ্টা •আমতলীতে স্কুল ছাত্রীকে যৌন হয়রানি প্রতিবাদ করায় মেয়েসহ মামাকে মারধর •ঝিনাইদহ জেলা শিক্ষক সমিতির প্রতিবাদ সভা
Untitled Document
  • সর্বশেষ সংবাদ
  • সবচেয়ে পঠিত
  • এক্সক্লুসিভ

Top
Untitled Document