/* */
   Saturday,  Sep 22, 2018   11 PM
Untitled Document Untitled Document
শিরোনাম: •পবিত্র আশুরা উপলক্ষে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে : আছাদুজ্জামান মিয়া •বান্দরবানে কৃষি ব্যাংকের উদ্যোগে সিংগেল ডিজিট সুদে ঋণ বিতরণ •সৌদি আরবে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের প্রথম বিদেশ সফর •জাতিসংঘ অধিবেশনে যোগদিতে শুক্রবার প্রধানমন্ত্রীর লন্ডনের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ •রোহিঙ্গা বসতিতে কক্সবাজারের জীববৈচিত্র্য হুমকির মুখে : ইউএনডিপি •মর্যাদার লড়াইয়ে আজ মুখোমুখি ভারত ও পাকিস্তান •সংসদে জাতীয় দক্ষতা উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ বিল, ২০১৮ পাস
Untitled Document

ডলফিন মানব!

তারিখ: ২০১৫-০৯-১২ ১৪:৩১:২১  |  ৪৫০ বার পঠিত

0 people like this
Print Friendly and PDF
« আগের সংবাদ পরের সংবাদ»

নিজস্ব ডেস্ক: মানুষের কত রকমই না বিশ্বাস থাকে। যেমন যুক্তরাষ্ট্রের হাওয়াইয়ের বাসিন্দা ডরিনা রোজিন ও তার স্বামী মাইকা সানেগল নিজেদের দাবি করেন ডলফিন মানব হিসেবে। তারা সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, তাদের সন্তান জন্ম দেবেন সাগরের তলদেশে। যেখানে একঝাঁক ডলফিন তাদের ঘিরে রাখবে। তাদের বিশ্বাস, এতে তাদের সন্তান জন্মের পর ডলফিনদের ভাষায় কথা বলতে পারবে।
প্রশ্ন জাগতে পারে ডলফিনের সানি্নধ্যে মানবশিশুর জন্ম কি আদৌ সম্ভব? তবে মজার ব্যাপার হলো এমন ঘটনা ঘটছে। কয়েক বছর আগেই শুরু হয়েছে এর প্রচলন। এর জনপ্রিয়তাও বাড়ছে। সাগরতলে না হলেও ওয়াটার বার্থ বা জলে শিশুর জন্মের বিষয়টা আগে থেকেই জনপ্রিয়। তবে বাবা-মায়েরা এখন আর নিছক জলে নয় বরং বন্ধুবৎসল ডলফিনদের সানি্নধ্যে শিশু জন্ম দিতে চান। এমন খেয়ালি ধারণাটা এসেছে ওয়াটার বার্থ থেকেই। ডরিনা রোজিন ও মাইকা সানেগল দম্পতি আরেক কাঠি সরেস। তারা ডলফিনের সানি্নধ্যে ওয়াটার বার্থ চান, তবে কৃত্রিম পরিবেশে না_ একেবারে প্রাকৃতিক পরিবেশে। অর্থাৎ সাগরতলে।
হাওয়াইয়ের সাইরিয়াস ইনস্টিটিউটের একটি বার্থ সেন্টার আছে। যেখানে ডলফিনের উপস্থিতিতে ওয়াটার বার্থের ব্যবস্থা আছে। তাদের ওয়েবসাইটে বলা আছে, 'যেহেতু জলে সন্তান জন্মদান উপকারী এবং ডলফিনও নানা রকম রোগ নিরাময়ে সহায়ক তাই এমনটি মনে করা যৌক্তিক যে জলে ডলফিনের উপস্থিতিতে সন্তান জন্মদানও উপকারী।'
তবে কথা হচ্ছে পোষা ডলফিন হয়তো বন্ধুবৎসল হতে পারে কিন্তু সাগরের ডলফিনও কি তাই হবে। অনেক হিংস্র ডলফিনও তো আছে। ডরিনা রোজিন ও মাইকা সানেগল দম্পতি এসব যুক্তিতে কান দিতে নারাজ। ৩৮ সপ্তাহের গর্ভবতী ডরিনা ইতিমধ্যে সাগরে ডলফিনদের সঙ্গে সময় কাটাতে শুরু করেছেন। ইউটিউবে তারা সম্প্রতি একটি ভিডিও আপলোড করেছেন। তাতে দেখা যায় গর্ভবতী ডরিনা ডলফিনদের পাশ দিয়ে সাঁতরে যাচ্ছেন আর মাইকা তাদের সঙ্গে নাচছেন। একে তারা বলছেন ডলফিন ব্লেজিং সেরেমনি বা ডলফিনের আশীর্বাদ নেওয়ার উৎসব। সূত্র : অডিটি সেন্ট্রাল।


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

•কলাপাড়ায় টিয়াখালী ইউনিয়নের উন্মুক্ত বাজেট ঘোষনা ॥ •নবম ওয়েজ বোর্ডের কার্যক্রম শুরু •খসড়া ভোটার তালিকা প্রকাশ •ফিলিপাইনে ঝড়ের আঘাতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৩৩ •শেখ হাসিনাকে ‘বোন’ ডাকলেন হুন সেন •কবিসংসদ বাংলাদেশ-এর ২৯৯তম সাহিত্যসভা অনুষ্ঠিত •বার্মায় মুসলিম বিরোধী এক উগ্র বৌদ্ধ ভিক্ষুর কথা • ১৫ আগষ্ট’ ২০১৭ ইং জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে নিলখী ইউনিয়ান আওয়ামীলীগের উদ্যোগে দোয়া ও মিলাদ মাহফিল পরে তোবারক বিতরন।
Untitled Document
  • সর্বশেষ সংবাদ
  • সবচেয়ে পঠিত
  • এক্সক্লুসিভ

Top
Untitled Document