/* */
   Monday,  Sep 24, 2018   04:13 AM
Untitled Document Untitled Document
শিরোনাম: •পবিত্র আশুরা উপলক্ষে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে : আছাদুজ্জামান মিয়া •বান্দরবানে কৃষি ব্যাংকের উদ্যোগে সিংগেল ডিজিট সুদে ঋণ বিতরণ •সৌদি আরবে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের প্রথম বিদেশ সফর •জাতিসংঘ অধিবেশনে যোগদিতে শুক্রবার প্রধানমন্ত্রীর লন্ডনের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ •রোহিঙ্গা বসতিতে কক্সবাজারের জীববৈচিত্র্য হুমকির মুখে : ইউএনডিপি •মর্যাদার লড়াইয়ে আজ মুখোমুখি ভারত ও পাকিস্তান •সংসদে জাতীয় দক্ষতা উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ বিল, ২০১৮ পাস
Untitled Document

সাবেক ব্যাংক কর্মকর্তা হত্যায় ১ জনের মৃত্যুদণ্ড

তারিখ: ২০১৫-০৯-১৪ ১৫:৫৬:৩২  |  ২০৯ বার পঠিত

0 people like this
Print Friendly and PDF
« আগের সংবাদ পরের সংবাদ»

নিজস্ব প্রতিবেদক: ব্র্যাক ব্যাংকের ঢাকার গুলশান শাখার সাবেক কর্মকর্তা টিএম মেহেদী মাসুদ হত্যা মামলার একজনের মৃত্যুদণ্ড ও একজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

সোমবার ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-৪ এর বিচারক আবদুর রহমান সরদার এ রায় ঘোষণা করেন।

এ মামলায় বিভিন্ন সময় ১৯ জন সাক্ষ্য প্রদান করেছেন।

মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, ২০১১ সালের ১৬ সেপ্টেম্বর বিকেলে পূর্বপরিচিত আব্দুর মজিদ ডালিমের ফোন পেয়ে ব্র্যাক ব্যাংকের গুলশান শাখার সাবেক কর্মকর্তা টিএম মেহেদী মাসুদ তার প্রাইভেটকারে সাভারের জামগড়ায় যান। সেখান থেকে আসামিরা গাড়িতে উঠে টাঙ্গাইল যায়। আসামিরা গাড়ির নিয়ন্ত্রণ নেয় এবং গলায় গামছা পেঁচিয়ে মেহেদীকে হত্যা করে। আসামিরা লাশ শুভুল্যা ব্রিজের নিচে ফেলে দিয়ে গাড়ি নিয়ে ঢাকার দিকে আসার পথে সাভারের বাইপাস চেকপোস্টে গাড়ি রেখে চলে যায়।

২০১১ সালের ১৭ সেপ্টেম্বর টাঙ্গাইলের মির্জাপুর শুভুল্যা ব্রিজের নিচ থেকে পানিতে ভাসমান লাশ উদ্ধার করে মির্জাপুর থানা পুলিশ। এ ঘটনায় মির্জাপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) বিমল চন্দ্র পাইন বাদী হয়ে মামলাটি করেন। ২০১৩ সালের ২৯ সেপ্টেম্বর সিআইডির টাঙ্গাইল জেলার পরিদর্শক জাফর ইকবাল চারজনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। ২০১৪ সালের ১ সেপ্টেম্বর আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেন আদালত।

অভিযুক্ত চার আসামি হলেন- আব্দুল মজিদ ডালিম (৩৪), মো. ইদুল (২৬), মো. জাহাঙ্গীর আলম (২৬) ও ফারুক হোসেন (২৭)। এদের মধ্যে ফারুক হোসেন পলাতক। বাকিরা কারাগারে রয়েছেন।

আসামিদের মধ্যে মো. ইদুল ও মো. জাহাঙ্গীর আলম আদালতের কাছে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দিয়েছেন।


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

•পবিত্র আশুরা উপলক্ষে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে : আছাদুজ্জামান মিয়া •হলি আর্টিজান মামলার অভিযোগপত্র দাখিল •আমতলীতে ৫শ’পিচ ইয়াবাসহ মাদক বিক্রেতা আটক •এমপি হোক আর এমপির ছেলে হোক কাউকে ছাড় নয়: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী,আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল •বেসিক ব্যাংকের দুর্নীতি মামলার সব তদন্ত কর্মকর্তাকে আদালতে তলব •খালেদা জিয়ার মাথায় আরো যেসব মামলা ঝুলছে •নিখোঁজ হবার প্রায় চারমাস পর 'গ্রেপ্তার' বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির মহাসচিব, চারদিনের রিমান্ডে •ডেসটিনির দুই শীর্ষ কর্তার আবেদন খারিজ
Untitled Document
  • সর্বশেষ সংবাদ
  • সবচেয়ে পঠিত
  • এক্সক্লুসিভ

Top
Untitled Document