/* */
   Wednesday,  Dec 19, 2018   5 PM
Untitled Document Untitled Document
শিরোনাম: •স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষায় সজাগ থাকতে সেনা কর্মকর্তাদের প্রতি রাষ্ট্রপতির আহ্বান •মনোনয়ন বাতিলের বিরুদ্ধে খালেদা জিয়ার আপিল ইসিতে খারিজ •মনোনয়ন না পাওয়া দলের প্রার্থীদের মহাজোট প্রার্থীর পক্ষে প্রার্থিতা প্রত্যাহারের অনুরোধ শেখ হাসিনার •নির্বাচনী প্রচারণায় ট্রাম্পকে ‘রাজনৈতিক’ সহযোগিতার প্রস্তাব দেয় রাশিয়া •টেকনোক্রেট কোন মন্ত্রী কেবিনেটে থাকছেন না : ওবায়দুল কাদের •বেগম রোকেয়া দিবস কাল •আগামীকাল থেকে ওয়েস্ট ইন্ডিজ . বাংলাদেশ। ওয়ানডে সিরিজ
Untitled Document

সাংবাদিকদের নিয়ে বিরূপ মন্তব্য করায় রওশনের উপর ক্ষুব্ধ সাংবাকিদরা।

তারিখ: ২০১৫-১২-৩০ ০১:৩৯:৫৫  |  ৩৩৪ বার পঠিত

0 people like this
Print Friendly and PDF
« আগের সংবাদ পরের সংবাদ»

বাংলার বর্ণমালা ডেস্ক;  জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়ামের  সিনিয়র সদস্য ও বিতর্কিত নির্বাচনে গঠিত জাতীয় সংসদের বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদ সাংবাদিকতা ও সাংবাদিকদের নিয়ে বিরূপ মন্তব্য করায় তার উপর ক্ষুব্ধ সাংবাকিদরা।

আজ মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১১টায় জাতীয় সংসদের মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি সাংবাদিকতা পেশা নিয়ে অপ্রাসঙ্গিক মন্তব্য করেন। এসময় উপস্থিত সাংবাদিকরা ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন।

রওশন বলেন, কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা না থাকায় দেশে এতো সাংবাদিক, এতো ইলেকট্রনিক্স মিডিয়া। আমি গুণে গুণে দেখেছি, দেশে ৪০টি ইলেকট্রনিক মিডিয়া আছে। যেখানে ১০টি হলেই যথেষ্ট ছিল।

পৌর নির্বাচনে জাতীয় পার্টির প্রার্থীদের ওপর হামলার অভিযোগের কথা জানালে রওশন এরশাদ বলেন, ‘আমাদের প্রার্থীদের উপর কোথাও হামলা হয়নি। এতগুলো ইলেকট্রনিক মিডিয়া, এতগুলো সাংবাদিক, একটা খড়কুটো পড়েই আপনারা লিখে ফেলেন। আগে এতো সাংবাদিক ছিল না, এতো ইলেকট্রনিক মিডিয়াও ছিল না, এতো খবর মানুষ জানতেই পারত না।’

তিনি বলেন, ‘আমাদের দেশে প্রায় ৪০টি চ্যানেল আছে। দশটি চ্যানেল হলেই চলত। আমি কিছুদিন আগে একটা অনুষ্ঠানে গুণে দেখেছি প্রায় ৪০টি চ্যানেল আছে। এই যে এখানে কত চ্যানেল, কত সাংবাদিক। আপনারা খুঁজে খুঁজে নিউজ বের করেন।’

মিডিয়ার ভাল দিকও আছে উল্লেখ করে রওশন এরশাদ বলেন, ‘অনেক সময় মনে হয় কম হলেই ভাল হতো। এখন অনেক খবর দ্রুত ছড়ায়। এতে মনে হয়, না ছড়ালেই ভাল হতো।’

‘আপনারা কিছু মনে করবেন না, যেহেতু আমাদের কর্মসংস্থান নেই, তাই এই দশা। কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা থাকলে আপনারা এই পেশায় আসতেন না’, বলেন তিনি।

এ সময় সাংবাদিকরা তীব্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করলে রওশন বলেন, ‘না আমি এভাবে কথা বলিনি। খালি সাংবাদিকরা না। সাংবাদিকতা ভাল জব। আমাদের ছেলেপেলেরা কাজ পাচ্ছে না। না পাওয়ায় ড্রাগ খাচ্ছে, এটা করছে সেটা করছে।’  


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

•আইপিইউ এসেম্বলী শেষে জেনেভা থেকে দেশে ফিরলেন স্পিকার •কলাপাড়ায় টিয়াখালী ইউনিয়নের উন্মুক্ত বাজেট ঘোষনা ॥ •নবম ওয়েজ বোর্ডের কার্যক্রম শুরু •খসড়া ভোটার তালিকা প্রকাশ •ফিলিপাইনে ঝড়ের আঘাতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৩৩ •শেখ হাসিনাকে ‘বোন’ ডাকলেন হুন সেন •কবিসংসদ বাংলাদেশ-এর ২৯৯তম সাহিত্যসভা অনুষ্ঠিত •বার্মায় মুসলিম বিরোধী এক উগ্র বৌদ্ধ ভিক্ষুর কথা
Untitled Document
  • সর্বশেষ সংবাদ
  • সবচেয়ে পঠিত
  • এক্সক্লুসিভ

Top
Untitled Document