/* */
   Friday,  Jun 22, 2018   11:18 AM
Untitled Document Untitled Document
শিরোনাম: •সিসিলিতে ৫২২ অভিবাসী নিয়ে ইতালির উপকূলরক্ষী জাহাজের অবতরণ •সরকারের উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড সম্পর্কে তুলে ধরতে গণমাধ্যমের প্রতি তথ্য সচিবের আহ্বান •বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চলে ১ কোটি মানুষের কর্মসংস্থান হবে : প্রধানমন্ত্রী •মানবসম্পদ উন্নয়নে জাপান ৩৪ কোটি টাকার অনুদান দেবে •সৌদি আরবকে হারিয়ে রাশিয়াকে নিয়ে শেষ ষোলোতে উরুগুয়ে •গণভবনে মহিলা ক্রিকেটারদের প্রধানমন্ত্রীর সংবর্ধনা •প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে নির্বাচনকালীন সরকার অক্টোবরে গঠিত হতে পারে : ওবায়দুল কাদের
Untitled Document

তালতলীর এক ভুমিদস্যু মামলাবাজ ফারুক কমান্ডার এলাকায় ভুমি দখল ও মিথ্যা মামলা দিয়ে নিরীহ মানুষদের হয়রানী

তারিখ: ২০১৬-১১-১২ ২১:০৩:৪২  |  ২০৩ বার পঠিত

0 people like this
Print Friendly and PDF
« আগের সংবাদ পরের সংবাদ»

বিশেষ প্রতিনিধি ঃ মোঃ ফারুক হোসেন (৫৫), ভূমি অফিসের পিয়ন, বর্তমানে পাথরঘাটা ভূমি অফিসে কর্মরত। বরগুনার তালতলী উপজেলার বড় ভাইজোড়া গ্রামে তার বাড়ি। এলাকায় ফারুক কমান্ডার হিসেবে তিনি পরিচিত। কিন্তু কবে কোথায় কিসের কমান্ডার ছিলেন তিনি তা জানেনা কেউ। ফারুক কমান্ডার একজন সামান্য পিয়ন পদে চাকুরী করলেও তিনি এখন কোটিপতি। তার বাড়ির সামনে প্রায় ২০ একর জমি নিয়ে করেছেন একটি মাছের ঘের। তালতলী বাজার কেন্দ্রীয় মসজিদের সামনে ভিটি করেছেন যার আনুমানিক মূল্য ৩০ লক্ষ টাকা। এ ছাড়াও রয়েছে তার কৃষি জমি ও  ব্যবসা বানিজ্য। তার দুই ছেলে নজরুল ও জহিরুল এসব পরিচালনা করছেন। কিন্তু ফারুক কমান্ডারের এসকল অর্থের উৎস কোথায়? তিনি কি অলাদীনের চেরাগ পেয়েছেন? না বিদেশ থেকে কখনও কারি কারি টাকা নিয়ে এসেছেন? এর কেনটিই নয়।
 সরে জমিন অনুসন্ধানে জানা গেছে, ভুমিদস্যু মামলাবাজ ফারুক কমান্ডার এলাকায় ভূমিদখল, খাস জমি দখল ও ভূমি অফিসের দালালী করে রাতারাতি অঢেল অর্থ-বিত্তের মালিক হয়েছেন।ফারুক কমান্ডার ভুমি অফিসের পিয়ন হওয়ায় ভূমি সংক্রান্ত ফাক ফোকর জেনে তিনি ভুমিদখল ও খাস জমি দখল করে আসছে। নিজে অঢেল অর্থ বিত্তের মালিক হওয়া সত্তেও তার ছেলেদের ভূমিহীন দেখিয়ে খাস জমি বন্দোবস্ত নিচ্ছেন। এ সকল খাস জমি প্রকৃত ভূমিহীনদের দখলে থাকায় দখল নিয়ে তাদের সাথে বিরোধ সৃষ্টি হচ্ছে। দখল না পেয়ে এ সকল ভুমিহীন  নিরীহ মানুষদেরকে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানী করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ফারুক কমান্ডার ১৯৮৬/৮৭ সালে একটি ভূমি বন্দোবস্ত নিয়ে বিক্রি কওে দিয়েছেন।  
ফারুক কমান্ডারের প্রতিবেশী বড় ভাইজোড়া গ্রামের ভূমিহীন ভ্যানচালক মালেক ১নং খাস খতিয়ানের ১০৩৭ দাগের খাস জমিতে বসত বাড়ি নির্মাণ করে দীর্ঘদিন যাবৎ বসবাস করে আসছে। ২০০৬ সালে উক্ত জমি বন্দোবস্ত পেতে মালেক ভূমি অফিসে আবেদন করেন। এদিকে ভুমিদস্যু ফারুক কমান্ডার তার বড় ছেলে নজরুলকে ভুমিহীন দেখিয়ে তিনিও আবেদন করেন। ফারুক কমান্ডার ভুমি অফিসের পিয়ন। ভুমি অফিসের কিছু অসাধু কর্মকর্তাদের যোগ সাজসে মালেকের আবেদন গায়েব করে দিয়ে ভুয়া তথ্য দিয়ে তার ছেলে নজরুলের নামে জমি বন্দোবস্ত করিয়ে নেয়। এবার বন্দোবস্ত জমি দখলের পালা। ফারুক কমান্ডার উক্ত জমি দখলে পেতে মলেককে চাপ প্রয়োগ করতে থাকে। মালেক জমি ছেড়ে না দেয়ায় তার বিরুদ্ধে একের পর এক মিথ্যা মামলা হামলা সহ বিভিন্ন রকমের হয়রানী করতে থাকে।তার বাড়ি-ঘরে হামলা করে।তাকে চলার পথে বাধা দেয়। তার বাড়ির গাছ কেটে নেয়। এর পরে দিতে থাকে একের পর এক মিথ্যা মামলা। গত ১০.০৪.২০১৬ তারিখে ফারুক কমান্ডারের ছেলে নজরুল বাদী হয়ে আমতলী সিনিয়র জুডিশিয়াল মেজিষ্ট্রেট কোর্টে বাদী হয়ে একটি মাছ চুরি ও পিলার তুলে ফেলার মামলা করে।বিজ্ঞ বিচারক মামলাটি তালতলী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নিখিল চন্দ্রের কাছে দিলে এ মামলায় ফারুক কমান্ডারেরর নিজস্ব লোকজন দিয়ে মিথ্যা স্বাক্ষী দিয়ে ঘটনার আংশিক সত্যতা দেখায়। ঐ মামলায় আসামীরা জামিন পেলে কিছুদিন পরে ফারুক কমান্ডার মালেকের বাড়ির গাছ কেটে নিয়ে উল্টো তার ছেলে নজরুলকে বাদী করে গত ১০.০৪.২০১৬ তারিখ আমতলী সিনিয়র জুডিশিয়াল মেজিষ্ট্রেট আদালতে মিথ্যা মামলা দেয়। অসহায় দরিদ্র মালেক এখন প্রভাশালী ফারুক কমান্ডার ও তার ছেলে নজরুলের হামলা-মামলায় অতিষ্ঠ হয়ে নিজ বসত বাড়িতেও টিকে থাকতে পারছেনা। মালেকের উক্ত বন্দোবস্ত জমি নিয়ে  তৎকালীন তালতলী উপজেলা নির্বাহি অফিসার ইসরাইল হোসেনের কাছে আবেদন করলে তিনি গত ০২.০৬.২০১৬ তারিখ ভুমি অফিসের সার্ভেয়ার মাসউদউল আলমের কাছে তদন্তে  আদেশ দেন। সার্ভেয়ার মাসউদউল আলম গত ৭.৬.২০১৬ বন্দোবস্ত কেসটি বাতিল করা যেতে পারে মর্মে রিপোর্ট দাখিল করেন। তিনি রিপোর্টে উল্লেখ করেন বন্দোবস্ত প্রাপ্ত নজরুল প্রকৃত ভূমিহীন নয়। এবং তার পিতা একজন সরকারী চাকুরীজীবি। এতদসত্বেও ফারুক কমান্ডার দরিদ্র মালেককে হয়রানী করে আসছে। (চলবে)


এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

•এসডিজি অর্জনে দেশকে জঙ্গি, মাদক ও জলদস্যু-বনদস্যু মুক্ত করতে হবে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী •একনেকে ৩৯ হাজার ২৪৬ কোটি টাকা ব্যয়ে পদ্মা সেতু রেল সংযোগ প্রকল্পের অনুমোদন •সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্টের সাথে স্পিকারের সাক্ষাৎ •বঙ্গবন্ধু স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসের ভাষণে গুরুত্বপূর্ণ নির্দেশনা দেন •আমরা কর্মবিমুখ জাতি গড়তে চাই না : প্রধানমন্ত্রী •পড়ালেখা করে মানুষ হতে হবে : তথ্যমন্ত্রী •ইলদিরিমের সম্মানে প্রধানমন্ত্রীর নৈশভোজ •সরকারি কর্মচারী গ্রেফতারে অনুমতি লাগবে না দুদকের ফৌজদারি মামলায় চার্জশিট গৃহীত না হলে গ্রেফতার করা যাবে না
Untitled Document
  • সর্বশেষ সংবাদ
  • সবচেয়ে পঠিত
  • এক্সক্লুসিভ

Top
Untitled Document