/* */
   Monday,  Dec 17, 2018   11:50 AM
Untitled Document Untitled Document
শিরোনাম: •স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষায় সজাগ থাকতে সেনা কর্মকর্তাদের প্রতি রাষ্ট্রপতির আহ্বান •মনোনয়ন বাতিলের বিরুদ্ধে খালেদা জিয়ার আপিল ইসিতে খারিজ •মনোনয়ন না পাওয়া দলের প্রার্থীদের মহাজোট প্রার্থীর পক্ষে প্রার্থিতা প্রত্যাহারের অনুরোধ শেখ হাসিনার •নির্বাচনী প্রচারণায় ট্রাম্পকে ‘রাজনৈতিক’ সহযোগিতার প্রস্তাব দেয় রাশিয়া •টেকনোক্রেট কোন মন্ত্রী কেবিনেটে থাকছেন না : ওবায়দুল কাদের •বেগম রোকেয়া দিবস কাল •আগামীকাল থেকে ওয়েস্ট ইন্ডিজ . বাংলাদেশ। ওয়ানডে সিরিজ
Untitled Document

নজরুলের আদর্শে অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ গড়ে তুলতে রাষ্ট্রপতির আহ্বান

তারিখ: ২০১৭-০৫-২৬ ০০:২৮:৫১  |  ২২৪ বার পঠিত

0 people like this
Print Friendly and PDF
« আগের সংবাদ পরের সংবাদ»
 রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ মতপার্থক্য ভুলে জাতীয় কবি নজরুল ইসলামের চেতনা ও আদর্শে উদ্বুদ্ধ হয়ে একটি শোষণমুক্ত এবং অসাম্প্রদায়িক সোনারবাংলা গঠনে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার জন্য সকলের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।
আজ জাতীয় কবি নজরুলের ১১৮তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় ভাষণে রাষ্ট্রপতি বলেন, নজরুল শুধু একজন মানবতাবাদী কবিই ছিলেন না, তিনি সা¤্রাজ্যবাদ, ঔপনিবেশবাদ, পুঁজিবাদ, ফ্যাসিবাদ, সাম্প্রদায়িকতা, ধর্মান্ধতা, আঞ্চলিকতা এবং শোষণ ও নিপীড়নের বিরুদ্ধে শক্তিশালী কণ্ঠস্বর ছিলেন।
জাতীয় কবি নজরুলের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে রাষ্ট্রপতি হামিদ বলেন, নজরুলই একমাত্র সাহিত্যিক ছিলেন, যিনি উপলব্ধি করেছেন সাম্প্রদায়িকতাই উপমহাদেশের বড় সমস্যা। তাই তিনি আজীবন এর বিরুদ্ধে লড়াই করে গেছেন। নজরুল ছিলেন একজন বড়মাপের মানবতাবাদী কবি। তিনি তার সঙ্গীত ও কবিতার মাধ্যমে মানুষের সৃষ্ট মতপার্থক্যের কৃত্রিম দেয়াল ভেঙ্গে ফেলার চেষ্টা করেছেন।
আবদুল হামিদ বলেন, সাম্য ও মানবতার কবি হিসেবে সঙ্গীত, কবিতা, গল্প এবং উপন্যাসসহ নজরুলের সাহিত্য কর্ম সমাজে ধর্মনিরপেক্ষ জাতীয়তাবাদের দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে।
তিনি বলেন, এ দেশের মাটি, মানুষ, প্রকৃতি এবং ইতিহাস-ঐতিহ্যের সঙ্গে নজরুল খুবই ঘনিষ্ঠ ছিলেন। তাই জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭২ সালে তাকে ও তার পরিবারের সদস্যদেরকে যথাযথ মর্যাদায় বাংলাদেশে নিয়ে আসেন।
আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর। অনুষ্ঠানে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হয়। রাষ্ট্রপতিকে নজরুলের পুরো সাহিত্য কর্মের একটি ভলিউম উপহার দেয়া হয়।
এতে সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. ইব্রাহীম হোসেন খান এবং নজরুল ইনস্টিটিউটের ট্রাস্টি বোর্ড চেয়ারম্যান প্রফেসর এমিরিটাস রফিকুল ইসলাম, প্রফেসর সৌমিত্র শেখর এবং নজরুলের নাতনী খিল খিল কাজীও বক্তৃতা করেন।  বাসস                                    

এ পাতার অন্যান্য সংবাদ

•শেখ মুজিব হত্যার পর জেনারেল জিয়া যে মন্তব্য করেছিলেন •ভ্যাটের জটিলতা নিরসন জরুরি •২০১৭ সালের প্রত্যাশা ও সম্ভাবনা লায়ন মোঃ গনি মিয়া বাবুল •পরাজিত শক্তির ব্যাপারে সদা সতর্ক ও সচেতন থাকতে হবে . .লায়ন মোঃ গনি মিয়া বাবুল •নির্লোভ একজন সফল মানুষ লায়ন মোঃ গনি মিয়া বাবুল •তথ্য অধিকার নিশ্চিত করতে হবে .. লায়ন গনি মিয়া বাবুল •বাল্যবিবাহ প্রতিরোধে নিজ-নিজ এলাকায় এমপিদের কাজ করার আহবান
Untitled Document
  • সর্বশেষ সংবাদ
  • সবচেয়ে পঠিত
  • এক্সক্লুসিভ

Top
Untitled Document